তানিয়ার ভর্তিসহ প্রতিমাসে বৃত্তির দায়িত্ব নিলেন ছাত্রলীগের জাকির

25
zakir satrolig

রাজশাহী নগরীর ডাঁশমারী এলাকার নূরুল ইসলামের মেয়ে তানিয়া মুস্তারীকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিসহ তাকে প্রতিমাসে বৃত্তি দেয়ার দায়িত্ব নিয়েছেন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক এসএম জাকির হোসাইন।

শনিবার রাত পৌনে ৯টায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন এসএম জাকির হোসাইন। এর আগে অর্থাভাবে ভর্তি নিয়ে শংকায় তানিয়া শিরোনামে একটি সংবাদ প্রচার হয়। সেই সংবাদ ছাত্রলীগ নেতা এসএম জাকির হোসাইনের নজরে আসে।

জাকির বলেন, তানিয়াকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির ফি, হলে তুলে দেয়া এবং প্রতিমাসে তার লেখাপড়া বাবদ খরচ হিসেবে বৃত্তির ব্যবস্থা করে দেব।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক (সম্মান) ভর্তি পরিক্ষায় ‘খ’ ইউনিটে ৫৪তম হয়েছেন রাজশাহীর তানিয়া মুস্তারী।

তানিয়া মুস্তারীর বাবা নূরুল ইসলাম রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন বিনোদপুরের বিশ্বাস ছাত্রাবাসে সামান্য বেতনে গার্ডের চাকরি করেন। সংসার সামলে তা দিয়ে কোনো মতে মেয়ের পড়ালেখার খরচ চালান তিনি।

নূরুল ইসলাম বলেন, তার তিন মেয়ে। ছেলে নেই। এদের মধ্যে সবার ছোট তানিয়া মুস্তারী। সে এইসএসসি পাস করে ঢাবিতে ভর্তি পরীক্ষা দিয়েছে। টাকার অভাবে শুধু ‘খ’ ইউনিটে ফরম তুলেছিল। সেখানে মেধা তালিকায় ৫৪তম স্থান অর্জন করেছে।

তিনি আরও বলেন, ছোটবেলা থেকেই মেয়েটি অত্যন্ত মেধাবী। সে ৫ম ও ৮ম শ্রেণিতে ট্যালেন্টপুলে বৃত্তি পেয়েছে। রাজশাহী দারুস সুন্নাহ দাখিল মাদরাসা থেকে মানবিক বিভাগে গোল্ডেন জিপিএ-৫ পেয়ে দাখিলে উত্তীর্ণ হয়েছে। মানবিক বিভাগে জিপিএ-৫ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে রাজশাহী কলেজ থেকে।

মেধাবী শিক্ষার্থী তানিয়া মুস্তারী বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে তার আইনে ভর্তির সুযোগ হয়েছে। বিভাগে সাক্ষাৎকারের জন্য তাকে ডাকা হয়েছে ২২ অক্টোবর।